Best value

ফেসবুকে অনলাইন ব্যবসা করছেন? সাবধান! কিছু বিষয় জেনে নিন।

ফেসবুকে অনলাইন ব্যবসা এখন জনপ্রিয়তায় শীর্ষে। কেউ বুঝে করছেন, কেউ না বুঝেই করছেন। ফ্রি আর কোটি লোকের ঠিকানা এখন ফেসবুক। এই সুযগে আনেকেই ভাল ব্যবসা করে যাচ্ছেন কেবলই ফেসবুক ব্যবহার করে। আমি কখনই বলবনা যে ফেসবুক দিয়ে ব্যবসা হয় না। অবশ্যই ফেসবুক ই-কমর্স জগতের নতুন দিগন্ত উন্মোচন করেছে। তবে শুধুই ফেসবুক ব্যবহার করে কতদূর এগোনো যায়? এর ভবিষ্যৎ কি হতে পারে? ফেসবুকের গ্রুপ, পেজ বা প্রফাইল দিয়ে যারা অনলাইন ব্যবসা করছেন তারাই ভাল বলতে পারবেন এই বিষয়ে তবে আমি আজ কিছু সাবধান! বানী বলে যাব, যার বিচার আপনি নিজেই করবেন। শুধুই ফেসবুক ব্যবহার করবেন নাকি এর সাথে সাথে আপনার ব্যবসাকে আরো শক্তিশালী করতে নতুন কোন উপায় বেছে নিবেন। যেমনঃ শখের কৃষি এর মত ফ্রি কৃষিতে ই-কমার্স সাইট।

ফেসবুকে অনলাইন ব্যবসা

ফেসবুকে অনলাইন ব্যবসা

আজ আমি ১০টি বিষয়ে আলোচনা করব আর এরপর আর যে বিষয় আসবে তা আপনার কাছ থেকে কমেন্ট বক্সে আশা করছি।

১।  পেজ রিপর্ট এবং একাউন্ট মুছে ফেলা

যেহেতু আপনি ফেসবুকের মালিক না তাই ফেসবুক নিজেই আনেক সময় বিভিন্ন কারনে অকারনে গ্রুপ, পেজ বা প্রফাইল ডিলিট করে দেয় বা যে কেই আপনার প্রফাইল রিপোর্ট করে নষ্ট করে দিতে পারে। ১০০ টাকার বিনিময়ে এই কাজ করে দেয় এমন লোকও আছে। এতে আপনার সারা বছরের কষ্ট একনিমিসেই শেষ। আর ব্যবসার ক্ষতি আপনি নিজেই হিসাব করে নিবেন।

২।  ফ্রি প্রচারে বাধা এবং তথ্য ব্লক

আপনার পণ্য বা পোষ্ট আপনি এখন আর খুব বেশি ফ্রি প্রচার করতে পারবেন না। কারন এতে ফেসবুকের বিজ্ঞাপন থেকে আয় কমে যায়। ব্যবসা বড় হবার সাথে সাথে আপনাকে বিজ্ঞাপনের জন্য একরকম জোর করা হবে। এছাড়া বিভিন্ন কারনে অকারনে ফেসবুক আপনার আনেক পণ্য বা তথ্য ব্লক করে দিতে পারে যেকোন সময়।

৪। পণ্য সাজিয়ে রাখা

ফেসবুকে পণ্য সাজানো বা নতুন ডিজাইন করার সুযোগ কম। একই রকম ডিজাইন মানুষ বেশি নিতে পারে না। সবসময় নতুনভাবে চায়। আর আপনার পণ্য যদি অন্যদের থেকে আলাদাভাবে আরো সুন্দর করে সাজান থাকে তাহলে ব্যবসায় আপনি এগিয়ে যাবেন। এছাড়া আপনার প্রয়োজনিয় সকল তথ্য সঠিকভাবে ফেসবুকে দিতে পারবেন না।

৫। ক্রেতার কাছে গ্রহণযগ্যতা

ক্রেতা ফেসবুকের তথ্য অনেক সময় ভুয়া বা ফেক মনে করে থাকে। শখের কৃষি এর মত ওয়েবসাইটের প্রতি মানুষের আস্থা অনেক বেশি। সাধারণত ফেসবুক কোন দায়িত্ব নেয় না কিন্তু শখের কৃষি বিক্রেতার পাশাপাশি ক্রেতার সার্থ দেখে। এতে ব্যবসায় আপনি এগিয়ে যাবেন। না করলে অন্যদের থেকে পিছিয়ে যাবেন।

৬। Google search বা SEO

গুগলে ক্রেতা কোন পণ্য খুজলে ফেসবুকের আগে শখের কৃষি এর মত ওয়েবসাইটের নামই বেশি আসে।  গুগলে খুজলে আপনার  ফেসবুক পণ্য না আসাই স্বাভাবিক। ব্রান্ড আসলেও পণ্যের ছবি বা তথ্য না আসায় অনেকেই ইচ্ছা থকলেও আপনার পণ্য পর্যন্ত যেতে পারবে না বা কিনবে না।

৭। খারাপ কমেন্ট ও ভুয়া একাউন্ট

ফেসবুকে এখন আসল মানুষের থেকে ভুয়া মানুষ বেশি মনে হয়। কেই ইচ্ছে করে আপনার পণ্যের বদনাম করলে সেটা মুছার উপায় নেই। খারাপ কমেন্ট আর ছবিও পোস্ট করতে পারে। ফেসবুকে কেউ আপনার পণ্য বা তথ্যে খারাপ মন্তব্য বা ছবি ব্যবহার করলে সেটা সবার জন্য দেখার সুযগ হয়, যেটা আপনার ব্যবসার জন্য মটেও ভাল কিছু না। এছাড়া ভুয়া একাউন্ট এখন অনেক বেশি, যারা আপনার ব্যবসার বিতক্তির কারন হয়ে দাড়াতে পারে।

৮। ব্যবসার হিসাব বা বিজনেস রিপোর্ট

আপনার কোন পণ্য কখন কার কাছে কিভাবে, কোন সময় দিতে হবে এসবের হিসাব রাখা বা  আপনার ব্যবসার ভাল ক্ষতির হিসাব ফেসবুক কোনদিন করে দিবে না। শখের কৃষি এর মত ওয়েবসাইটে এর খুব সুন্দর সমাধান আছে।

৯। পেজ ভিজিটর

আপনার পেজে কি পরিমাণ ক্রেতা আসছে, কোথা থেকে আসছে সেটা কেউ লাইক, কমেন্ট না করলে বুঝবেন না। অন্য দিকে ওয়েবসাইটে কেউ আসলে সাথে সাথে তার একটা রেকর্ড থাকে। গুগল অ্যানালাইটিক এটি করে দেয়।  কে আসছে, কোথা থেকে আসছে, কখন আসছে এমন অনেক কিছুই জানতে পারবেন।

১০। কিছুদিন অনলাইন দোকান বন্ধ রাখা

ফেসবুকে অনলাইন দোকান বন্দ করার অপশন নাই তাই ক্রেতা এসে আপনার দোকান খোলা দেখে চলে গেলে আর আসবে না। শখের কৃষি এর মত ওয়েবসাইটে আপনি চাইলেই কিছুদিনের জন্য আপনার অনলাইন দোকান বন্ধ রাখতে পারবেন।

এছাড়া পণ্য ক্রেতার কাছে পৌছে দেয়া বা শিপিং খরচ বা মাধ্যম ইত্যাদির মত অতি গুরুত্বপূর্ন বিষয়ে ফেসবুকের কোন সহজ সমাধান নাই।

তাই বলি ফেসবুক শুধু ফেসবুক নিয়েই থাকে। তাই আপনার অনলাইন ব্যবসাকে বড় করে চিন্তা করার আগে ফেসবুকে হাজারো সুবিধার পাশাপাশি এই সব বিষয়গুলিও মাথায় রাখা দরকার বলে আমি মনে করি।  আপনি অবশ্যই অবশ্যই ফেসবুক ব্যবহার করবেন আপনার ব্যবসার জন্য তবে চাইলে শখের কৃষি এর মত ফ্রি ওয়েবসাইটের সাহায্য নিলে আপনার ব্যবসা আরো শক্তিশালী করতে পাবের। এছড়া ওয়েবসাইটের পণ্য আপনি ফেসবুক সহ সকল যায়গায় শেয়র করতে পারবেন। সবকিছুর পর এই লেখা ভাল লাগলে শেয়ার করুণ, আপনার মতামত দিন।

শেয়ার করুণ

শেয়ার করুণ

এসব ছাড়াও কৃষিতে ই-কমার্স এর আরো খুঁটিনাটি অনেক বিষয় আছে যা কাজ শুরু করলে এমনিতেই জানতে বা শিখতে পারবেন। আমি আপনাদের সাথেই আছি।  কৃষিতে ই-কমার্স নিয়ে কাজ করে যাচ্ছি। যেকোন দরকারে যোগাযোগ করতে পারেন। প্রতিটা বিষয়ে আনেক জানার আছে। নিজের কোন মতামত থাকলে #কৃষিতে_ইকমার্স হ্যাস ট্যাগ দিয়ে লিখুন। কৃষিতে ই-কমার্স এ নিজের ক্যরিয়ার গড়তে আমাদের সাথেই থাকুন।

#কৃষিতে_ইকমার্স

We will be happy to hear your thoughts

      Leave a Reply

      Logo
      Reset Password
      Compare items
      • Total (0)
      Compare
      0