খেসারী ও এর জাত

বাংলাদেশের ডাল ফসলের মধ্যে চাষযোগ্য এলাকা ও মোট উৎপাদনের দিক থেকে খেসারীর স্থান প্রথম। চাষ যোগ্য মোট জমি প্রায় ২.৯৫ লক্ষ হেক্টর এবং উৎপাদন প্রায় ৩.১০ লক্ষ মে.টন। খেসারী একক ফসল হিসেবে চাষের পাশাপাশি রিলে বা সাথী ফসল হিসেবে সহজেই চাষাবাদ করা যায়। উৎপাদিত অধিকাংশই ডাল হিসেবে ব্যবহার করা হয়। এর খড় ও ভুষি গবাদি পশুর খাবার হিসেবে অত্যন্ত উৎকৃষ্ট।

বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট এর ডাল গবেষণা কেন্দ্র কর্তৃক এ পর্যন্ত মোট ৪ (চার)

উচ্চ ফলনশীল খেসারীরজাত উদ্ভাবিত হয়েছে।এসব জাতে অধিক পুষ্টিমান এবং ক্ষতিকারক নিউরিটক্সিনের [ODAP (Oxalyl diaminopropionicacid)] পরিমাণ মাত্রার চেয়ে কম হওয়ায় কৃষক পর্যায়ে গ্রহণযোগ্যতা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

খেসারীর জাত

বারি খেসারী-১

বারিখেসারী-১ জাতটি ১৯৯৫ সালে অনুমোদন করা হয়েছে। এ জাত সমগ্র বাংলাদেশে চায় করা যায়। বারি খেসারী-১ জাতটি স্থানীয় জাতের তুলনায় ৪০% পর্যন্ত বেশী ফলন দেয়। এ জাতের গাছ গাঢ় সবুজ এবং প্রচুর শাখা-প্রশাখা হয়ে থাকে। বারি খেসারী-১ জাতের এক হাজার বীজের ওজন ৪৮-৫২ গ্রাম। ফসল জীবনকাল ১২৫-১৩০ দিন। হেক্টরপ্রতি গড় ফলন ১৪০০-১৬০০ কেজি। এ জাত পাউডারি ও ডাউন মিলিডিউ রোগ সহনশীল।

বারিখেসারী-২

বারি খেসারী-২ জাতটি ১৯৯৬ সালে সারাদেশে আবাদের জন্য জাতীয় বীজ বোর্ড কর্তৃক অনুমোদন লাভ করে। পাতা স্থানীয় জাতের তুলনায় বেশী চওড়া। ফুলের রং নীল। গাছের উচ্চতা ৫৫-৬০ সেমি। বীজ একটু বড় এবং এর রং হালকা ধূসর। হাজার বীজের ওজন ৫০-৫৫ গ্রাম। আমিষের পরিমাণ ২৪-২৬%। বীজ বপন থেকে ফসল পাকা পর্যন্ত ১২৫-১৩০ দিন সময় লাগে। ওডাপের (ODAP) পরিমাণ ০.০৬%। ফলন হেক্টরপ্রতি ১৫০০-২০০০ কেজি।

বারি খেসারী-৩

সিরিয়ায় অবস্থিত আন্তর্জাতিক ইনস্টিটিউট, ইকার্ডা (ICARDA)  হতে সংগৃহীত ২২টি সংকরায়িত লাইন বহুস্থানিক অভিযোজন পরীক্ষার মাধ্যমে বাংলাদেশের বিভিন্ন মাটি ও আবহাওয়াতে পরীক্ষা করা হয়। এগুলোর মধ্যে একটি লাইন Sel-190 রোগ সহনশীল, উচ্চফলনশীল এবং বেশী বায়ো-মাস উৎপাদন ক্ষমতাসম্পন্ন হওয়ায় বারি খেসারী-৩ হিসেবে ২০১১ সালে অবমুক্ত করা হয়।

এ জাতটি বাংলাদেশের প্রধান খেসারী আবাদী এলাকাসমূহের একক ফসল এবং সাথী ফসল হিসেবে আমন ধানের সাথে  চাষ করা যায়। এঁটেল দোঁআশ, পলি বা পলি দোঁআশ মাটি জাতটি চাষের জন্য উপযোগী। ফুল বড় ও গাছের উচ্চতা ৬২-৬৫ সেমি এবং প্রতি গাছে পড সংখ্যা ৩৫-৩৭ টি, ১০০০ বীজের ওজন ৫৩-৫৮ গ্রাম। ফলন হেক্টরপ্রতি ১৮০০-২০০০ কেজি এবং জীবনকাল ১২০-১৩০ দিন। ওডাপ (ঙউঅচ) এর পরিমাণ ০.০৪%।

বারি খেসারী-৪

বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চল হতে সংগৃহীত জার্মপ্লাজম হতে প্রাথমিক, অগ্রগতি ও বহুস্থানীক পরীক্ষার মাধ্যমে ২০১৪ সালে জাতীয় বীজ বোর্ড কর্তৃক বারি খেসারী-৪ জাতটি আঞ্চলিক ডাল গবেষণা কেন্দ্র, মাদারীপুর হতে উদ্ভাবিত হয়েছে।

  • গাছের উচ্চতা ৬৫-৭০ সেমি
  • পাতা হালকা সবুজ এবং পত্রাংশগুলো বেশ ছোট হয়।
  • পত্রফলক বড়, ফুল সাদা ও বীজের রং সাদা
  • প্রতি গাছে পডের সংখ্যা ১৭-২৩ টি।
  • পডগুলো একটু লম্বাকৃতির।
  • বীজের ওজন : ৭.০-৭.১ গ্রাম (প্রতি ১০০টি)
  • জীবনকাল : ১১৪-১১৭ দিন
  • ফলন : ৭০০-১১০০ কেজি/হেঃ
  • পাউডারি মিলডিউ রোগ সহনশীল
  • পরিপক্ক অবস্থায় বেশ ঝোপালো হওয়ায় জাতটি গো-খাদ্য হিসাবে ভালো

সুত্রঃ কৃষি প্রযুক্তি হাতবই
বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট

We will be happy to hear your thoughts

Leave a Reply

শখের কৃষি
Logo
Reset Password
Shopping cart